You are currently viewing লোকাস্টা: মানব ইতিহাসের প্রথম সিরিয়াল কিলার

লোকাস্টা: মানব ইতিহাসের প্রথম সিরিয়াল কিলার

সৃষ্টির শুরুর থেকেই মানুষ অপরাধ করে আসছে, কালক্রমে অনেক অপরাধের ঘটনাই লিপিবদ্ধ হয়ে আসছে, চলছে সেসব অপরাধের ঘটনার বিবরণ মানুষের মুখে মুখে, প্রজন্ম থেকে প্রজন্মে।

পৃথিবী জুড়ে প্রতিদিন হাজারো অপরাধ ঘটছে। শনাক্ত হয়েছে শতশত সিরিয়াল কিলার। তাদের মনস্তাত্ত্বিক বিষয় সম্পর্কে জানার জন্য হচ্ছে হয়েছে ও হচ্ছে বিভিন্ন রকমের পরীক্ষা-নিরীক্ষা। কিন্তু পৃথিবীর প্রথম সিরিয়াল কিলার সম্পর্কে কখনো কি জানতে ইচ্ছে হয়েছে আপনার?

ইতিহাসের পাতা উল্টোলে যে ঘটনা প্রথমে পাওয়া যায়, সেটি ৩৩১ খ্রিস্টপূর্বের রোম সম্রাজ্যে, যেখানে দেখা যায় ১৭০ জন মহিলা তাদের স্বামীদের বিষ দেওয়ার মাধ্যমে হত্যা করেছিল। অনেকে এই ঘটনাকে বিষাক্ত প্লেগ নামও দিয়েছিল।

তবে এই নারীদের কেউই সিরিয়াল কিলার খেতাব পান নি, পৃথিবীর ইতিহাসের প্রথম সিরিয়াল কিলার লোকস্টা নামে একজন মহিলা।

এই লোকস্টা কে ছিলেন এবং কীভাবে তিনি ইতিহাসের প্রথম সিরিয়াল কিলার হয়েছিলেন?

লোকাস্টা খ্রিস্টীয় প্রথম শতাব্দীতে রোমান সাম্রাজ্যের শেষ প্রান্তের একটি প্রদেশে গল নামক স্থানে জন্মগ্রহণ করেন (যা বর্তমান ফ্রান্সের অন্তর্ভুক্ত)।

তিনি গ্রামাঞ্চলে তার প্রাথমিক জীবন কাটিয়েছেন। গ্রামে থাকার তিনি ভেষজ বিদ্যা এবং তার চারপাশের সমস্ত গাছপালার গুণাবলি সম্পর্কে অনেক কিছু শিখতে পেরেছিলেন। অর্থাৎ কোন গাছ বা লতাপাতায় কি হয়।

একটা সময়ে তিনি গল ছেড়ে রোম শহরে প্রবেশ করেন। খুব দ্রুতই তিনি রোম শহরের অবস্থা আর পরিবেশ বুঝে নেন। রোমে প্রবেশের পর প্রথমেই তিনি রোমের মানুষের স্বভাব চরিত্র টা সবার আগে বুঝেন।

রোমের মানুষদের চিহ্নিত করার জন্য দুটো ব্যাপার লক্ষণীয়।

রোমের মানুষদের দুটি প্রধান জিনিস দ্বারা চিহ্নিত করা যেতোঃ-

১) এরা ছিল প্রচন্ড মাত্রায় লোভী

২) তাদের ছিল প্রচুর উচ্চাকাঙ্ক্ষা

সেই সময়ে অনেক রোমানরা তাদের রাজনৈতিক প্রতিদ্বন্দ্বী এবং ধনী আত্মীয়দের ক্ষতি করার চেষ্টায় থাকতো। আর এই সুযোগটারই সৎ ব্যবহার করেছেন লোকাস্টা।

Photo credit: Joanna Kosinska

যেহেতু লোকাস্টার ভেষজ বিষয়ে অগাধ জ্ঞান ছিলো তিনি তাদের বিষ তৈরি করে দিতেন, যাতে মারা গেলে বোঝা যায় মৃত্যু হওয়া ব্যক্তি প্রাকৃতিক কারণেই মারা গেছেন।

তার ভেষজ জ্ঞান সম্পর্কে আড়ালেই রোমের মানুষজন জানতে পারে। আর লোকাস্টা অর্থের বিনিময়ে মানুষদের বিষ দিতে থাকেন। আর তিনি হয়ে উঠেন একজন পেশাদার বিষাক্ত সিরিয়াল কিলার।

আরো পড়ুন:  রাণী প্রথম এলিজাবেথ সম্পর্কে ৬ টি চমকপ্রদ তথ্য

লোকাস্টা প্রায়শই তার ক্রিয়াকলাপের জন্য গ্রেপ্তার হতেন, যেহেতু তার ক্লায়েন্ট সবাই ছিলো ধনী এবং প্রভাবশালী। তাদের হস্তক্ষেপের ফলে তিনি সবসময় জেল থেকে বেরিয়ে আসতে সক্ষম হতেন।

রোম সম্রাট ক্লাডিউস কে হত্যা

লোকাস্তার বিষ তৈরি করে বিষ সরবরাহ করেন, এই কথা প্রচার হতে হতে রোমান রাণী অ্যাগ্রিপিনার কানেও পৌঁছে যায়। সম্রাজ্ঞী অ্যাগ্রিপিনা তার দাসীকে দ্বারা লোকস্টাকে ডেকে পাঠান।

রাণী অ্যাগ্রিপিনার সম্রাটের সাথে বিবাহ হওয়ার আগে আরেকটি বিয়ে হয়েছিল এবং সেখানে একটি পুত্র সন্তান ও জন্মেছিল। সেই পুত্রের নাম নিরো। রাণী চাচ্ছিলেন নিরো হোক রাজার উত্তরাধিকার।

রোম সম্রাট ক্লাডিউস credit: history.com

কিন্তু রাজা ক্লাডিউস সেটি কখনোই হতে দেবেন না। একমাত্র রাজা মৃত্যুর ফলেই এটা করা সম্ভব। রাণী রাজাকে হত্যার জন্য লোকাস্টাকে ডেকে এনে বিষ তৈরি করান।

৫৪ খ্রিস্টাব্দের ১৩ই অক্টোবর ক্লডিউসকে সফলভাবে হত্যা করা হয়। সেই সময়ে রাণী তার ১৬ বছর বয়সী পুত্র নিরোকে সম্রাটের সিংহাসনে বসান। যেহেতু জানাজানি হয়ে যায় লোকস্টার বিষের জন্যই রাজার মৃত্যু হয়েছে, তাই লোকাস্টাকে বন্দী করে কারাগারে পাঠানো হয় এবং মৃত্যুদন্ডও দেওয়া হয়।

তরুণ সম্রাট নিরোর নিজস্ব প্রতিদ্বন্দ্বী এবং প্রতিপক্ষ ছিল। সে আর কেউ নয় তারই সৎ ভাই ব্রিটানিকাস। নিরো জানতেন যে ব্রিটানিকাসের সিংহাসনের প্রতি দাবি রয়েছে এবং তাকে পৃথিবী থেকে না সরালে ভবিষ্যতে সে তার পথের কাটা হয়ে উঠবে।

নিরো credit: wikipedia

সম্রাট হওয়ার কয়েক মাস পরে, নিরো একটি নতুন পরিকল্পনা করেন। আর তাই তিনি লোকাস্টা কে কারাগার থেকে মুক্তি দেওয়ার নির্দেশ দেন। নিরোর সুরক্ষার অধীনে এসে লোকস্টার বিষ ব্যবসা জমকালো এবং সমৃদ্ধ হয়ে উঠেছিল।

ব্রিটানিকাসকে পরবর্তীতে বিষ দিয়ে হত্যা করা হয়, তাই সম্রাটের অনেক রাজনৈতিক প্রতিদ্বন্দ্বীর ও সৃষ্টি হয়েছিল।

নিরোর নিজের পরিবারের সদস্যরা তাকে ভয় পেতে শুরু করেছিল। তাদের ভয়ের কারণ ছিল, যে তিনি তাদের হত্যা করতে লোকস্টা ব্যবহার করতে পারেন।

লোকাস্টা ঠিক কত লোককে হত্যা করেছে তা অজানা। কিন্তু, সেই সময়ে রোমে রাজত্ব করা অশান্ত রাজনৈতিক পরিবেশের পরিপ্রেক্ষিতে, কেউ কেবল অনুমান করতে পারে যে তার শিকার কয়েক ডজনের মধ্যে হবে।

নিরোর রাজত্ব ৬৪ খ্রিস্টাব্দে একটি রোমান প্রদেশের গভর্নর ভিনডেক্স দ্বারা সংঘটিত একটি অভ্যুত্থানের মাধ্যমে হঠাৎ ধ্বংস হয়ে যায়।

আরো পড়ুন:  প্লেগ রোগ নিরাময়ের জন্য স্যার আইজাক নিউটনের আবিষ্কৃত উদ্ভট ভেকসিন

তিনি রোম থেকে পালিয়ে যান এবং অবশেষে আত্মহত্যা করেন। অভ্যুত্থানের পরে নিযুক্ত সম্রাট পূর্ববর্তী শাসকের অত্যাচারের হাতিয়ার হিসাবে লোকাস্টার ভূমিকার জন্য লোকস্টাকে জনসম্মুখে নিন্দা করেছিলেন। আর সেই বছর তাকে তার অপরাধের জন্য মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হয়েছিল।

Featured Image credit: Ancient Origins