You are currently viewing নির্মলেন্দু গুণের প্রেমের উক্তি

নির্মলেন্দু গুণের প্রেমের উক্তি

নির্মলেন্দু প্রকাশ গুণ চৌধুরী (জন্ম ২১ জুন ১৯৪৫, ৭ আষাঢ় ১৩৫২ বঙ্গাব্দ), যিনি নির্মলেন্দু গুণ নামে ব্যাপক পরিচিত, একজন বাংলাদেশী কবি। কবিতার পাশাপাশি তিনি গদ্য এবং ভ্রমণকাহিনী লিখেছেন ও ছবি এঁকেছেন। তার কবিতায় মূলত নারীপ্রেম,শ্রেণী-সংগ্রাম এবং স্বৈরাচার বিরোধিতা, এ-বিষয়সমূহ প্রকাশ পেয়েছে।
তার কবিতা থেকে বাছাই করা কিছু প্রেমের পঙক্তি উল্লেখ করছি এই ব্লগ পোস্টে।

১#

আমি কি জানি না, এই বৈরি-পৃথিবীতে
শুধু তুমি ছাড়া কতটা দুর্লভ ছিল সুখ?
আমি কি জানি না, এই নিস্তরঙ্গ অকূল পাথারে
তুমি ছাড়া কতটা অসহ্য ছিল বাঁচা!

২#

এত যে আমি ওখানে যাই
ওখানেই পাই কাছে
ওইখানে তার পায়ের কিছু
চিহ্ন পড়ে আছে।

৩#

শুধু তোমাকে একবার ছোঁব,
অমরত্ব বন্দী হবে হাতের মুঠোয়।
শুধু তোমাকে একবার ছোঁব,
তারপর হব ইতিহাস।

৪#

আমার ভালোবাসা কিংবা প্রেম-সংক্রান্ত
কোনো স্মৃতি নেই, যাকে ঠিক ভালোবাসা
কিংবা প্রেম বলা যায়।

৫#

হাত বাড়িয়ে ছুঁই না তোকে
মন বাড়িয়ে ছুঁই,
দুইকে আমি এক করি না
এক কে করি দুই।

৬#

প্রিয়জন চলে গেলে মানুষই ব্যথিত হয়,
আকাশ নির্বিকার, আকাশ কখনও নয়।
তোমরা মানুষ, তাই সহজেই দুঃখ পাও,
হে ঈশ্বর, আমাকে আকাশ করে দাও।

৭#

তোমার ভালোবাসায় আমি অনশ্বর, অমর হয়েছি।
তোমাকে দেখার আগে আমি শিলা পাথর ছিলাম।
অচেতনের সাগরজলে আমি ভাসিতেছিলাম একা।

৮#

আমি কতো ভালোবাসা দু’পায়ে মাড়িয়ে অবশেষে,
কল্পনার মেঘলোক ছেড়ে পৌঁছেছি বাস্তব মেঘে।
আজ রাত বৃষ্টি হবে মানুষের চিরকাম্য দাবির ভিতরে।

৯#

আমায় তুমি যতোই ঠেলো দূরে
মহাকাশের নিয়ম কোথায় যাবে?
আমি ফিরে আসবো ঘুরে ঘুরে
গ্রহ হলে উপগ্রহে পাবে।

১০#

তোমাকে ভুলেছি স্বপ্নে, প্রেমে, অভ্যাসে, বেদনায়।
এখন বুকের মাঝে বন্ধন মুক্তির মৃদু-হাওয়া,
হাত তুলে অনায়াসে বিদায় দিয়েছি গত রাতে।
সুখে আছি, সুখলতা, বেঁচে থেকে বেদনা সহিতে।

১১#

ভালোবাসা, কী নাম তোমাকে দিবো?
তুমি তো আমারই নাম, আমারই আঙুল ছোঁয়া
আলিঙ্গনে বন্ধ সারাবেলা।

১২#

এখন যখন হঠাৎ তোমাকে ভাবি
সত্য সে-ও স্বপ্ন মনে হয়;
বুঝি প্রেম যত তীব্র, যত সত্য হোক,
সময়ের চেয়ে সত্য নয়।

১৩#

কাগজের দুটো পৃষ্ঠার মতো প্রেম,
কোনোদিন কেউ ছোঁবে না পরস্পর।
চোখের কৃষ্ণ বৃত্ত ঘিরেছে সাদা,
ভালোবাসা তবু আমার ভিতরে একা।

আরো পড়ুন:  বুদ্ধদেব গুহ উক্তি : ৩০ টি বিখ্যাত উক্তি

১৪#

তোমার জন্যে কখনো কখনো মৃত্যুর ঝুঁকি নিতে সাধ হয়।

১৫#

আমি আছি, তুমি নেই, এইভাবে দু’জন দু’দিকে।

১৬#

আবার যখনই দেখা হবে, আমি প্রথম সুযোগেই
বলে দেব স্ট্রেটকাটঃ ‘ভালোবাসি’।

১৭#

আমার চুল পেকেছে তোমার জন্য,
আমার গায়ে জ্বর এসেছে তোমার জন্য,
আমার ঈশ্বর জানেন- আমার মৃত্যু হবে তোমার জন্য।
তারপর অনেকদিন পর একদিন তুমিও জানবে,
আমি জন্মেছিলাম তোমার জন্য। শুধু তোমার জন্য।

১৮#

ভালোবাসা, অর্থ ও পুরষ্কার আদায় করে নিতে হয়।

১৯#

রাত্রিভর স্বপ্ন দেখে
ভোরসকালে ক্লান্ত।
যাকে নিয়ে স্বপ্ন দেখা,
সে যদি তা জানতো!

২০#

শুধু তোমাকে একবার
ছোঁব, শুধু একবার পেতে চাই অমৃত
আস্বাদ।